ঢাকারবিবার, ১৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

কানাডায় বিদ্বেষমূলক অপরাধ বেড়েছে ১৮২ শতাংশ

স্টাফ রিপোর্টার | সিটিজি পোস্ট
সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২২ ৪:০৩ অপরাহ্ণ
Link Copied!

২০১৪ থেকে ২০২২— ছয় বছরে কানাডায় বিদ্বেষ বা ঘৃণামূলক অপরাধ (হেইট ক্রাইম) বেড়েছে ১৮২ শতাংশ। দেশটির আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সংক্রান্ত জরিপ সংস্থা কানাডিয়ান সেন্টার ফর জাস্টিস অ্যান্ড কমিউনিটি সেফটি স্ট্যাটিসটিকস শনিবার এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে এ তথ্য।

জাস্টিস অ্যান্ড কমিউনিটি সেফটি স্ট্যাটিসটিকসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৪ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত কানাডায় বিদ্বেষমূলক অপরাধ ‍বৃদ্ধি পেয়েছিল ২৭ শতাংশ। কিন্তু তারপরের দুই বছর এই ধরনের অপরাধের রীতিমতো উল্লম্ফণ ঘটেছে দেশটিতে। ২০২০ এবং ২০২১ সাল— দুই বছরে ঘৃণামূলক অপরাধ বেড়েছে ১৫৫ শতাংশ।প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী, গত ছয় বছরে সবচেয়ে বেশি ঘৃণামূলক অপরাধ সংঘটিত হয়েছে দেশটির অন্টারিও প্রদেশের রাজধানী টরন্টোতে— ৭৭৯টি। তালিকায় টরন্টোর পরে আছে যথাক্রমে ভ্যানকুভার (৪২৯টি), মন্ট্রিয়েল (২৬০টি), অটোয়া (২৬০টি) এবং ক্যালগেরি (১৩৯টি) শহর।

জাস্টিস অ্যান্ড কমিউনিটি সেফটি স্ট্যাটিসটিকসের পক্ষ থেকে প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘বিদ্বেষমূলক বিভিন্ন অপরাধের মধ্যে ধর্ষণ ও যৌনসহিংসতামূলক অপরাধের হার বেশি। শতকরা হিসেবে এই হার ৬৪ শতাংশেরও ওপর। এবং প্রায় ৭০ শতাংশ ক্ষেত্রে এসব অপরাধের শিকার হয়েছেন দেশের ইহুদি, মুসলিম ও ক্যাথলিক খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীরা।’

‘ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের প্রতি ঘৃণাপূর্ণ মনোভাবের পাশাপাশি জাতিগত ও নৃতাত্ত্বিক বিদ্বেষও বাড়ছে কানাডায়। গত ৬ বছরে এই ক্যাটাগরির অপরাধের হার বেড়েছে ৬ শতাংশেরও বেশি।’
‘গত ছয় বছরে বিদ্বেষমূলক অপরাধ সবচেয়ে বেশি ঘটেছে কানাডায় বসবাসরত আরব এবং পশ্চিম এশিয়ার লোকজনের সঙ্গে। শতকরা হিসেবে এই হার ৪৬ শতাংশ। এছাড়া দক্ষিণ এশিয়ার লোকজনকে লক্ষ্য করে ঘৃণামূলক অপরাধ ঘটেছে ২১ শতাংশ এবং দক্ষিণপূর্ব এশিয়ার লোকজনের ক্ষেত্রে এই হার ১৬ শতাংশ।’

বিশ্বজুড়ে অভিবাসনপ্রত্যাশীদের জন্য সবচেয়ে কাঙ্ক্ষিত দেশসমূহের একটি কানাডা। তবে দেশটির বিদ্বেষমূলক অপরাধের সাম্প্রতিক এই পরিসংখ্যানে উন্নয়নশীল বিশ্বের অভিবাসনপ্রত্যাশীদের পাশাপাশি কানাডার সরকারও উদ্বেগে আছে।

সূত্র : এনডিটিভি ওয়ার্ল্ড

এসএমডব্লিউ